নাম্নী - জয়তী


যেন তার চক্ষু-মাঝে

     উদ্যত বিরাজে

     মহেশের তপোবনে নন্দীর তর্জনী।

          ইন্দ্রের অশনি

            মৌনে তার ঢাকা;

          প্রাণ তার অরুণের পাখা

     মেলিল দিনের বক্ষে তীব্র অতৃপ্তিতে

          দুঃসহ দীপ্তিতে।

     সাধক দাঁড়ায় তার কাছে,

সহসা সংশয় লাগে যোগ্যতা কি আছে;

          দুঃসাধ্যসাধন-তরে

              পথ খুঁজে মরে।

তুচ্ছতারে দাহে তার অবজ্ঞাদহন;

              এনেছে সে করিয়া বহন

          ইন্দ্রাণীর গাঁথা মাল্য; দিবে কণ্ঠে তার

              কার্মুকে যে দিয়েছে টংকার,

কাপট্যেরে হানিয়াছে, সত্যে যার ঋণী বসুমতী--

              নাম কি জয়তী।

 

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •